All posts filed under: Featured

Can tell my Mother – V Ladakh’14

যখন চোখ খুললাম বৃদ্ধা তখনও আমার দিকে চেয়ে আছেন। আমি একটু হাসলাম, দু’চারটে কথা বলার চেষ্টা করলাম ওঁনার সাথে। এর মধ্যে সুস্মিতা ফিরে এসেছে ইঞ্জেকশন আর ওষুধপত্রাদি নিয়ে। শুভ্রা গাউন পরিহিতা এক লাদাখী ডাক্তার এসে আমাকে ইঞ্জেকশন দিয়ে গেলেন। শুয়ে থাকতে বলা হল আরো আধ-ঘন্টা কোন চিন্তা ছেড়ে। ভাইয়াজিরাও অনেক্ষন এসেছেন, ওঁনাদের হয়ত আরও অন্য কোথাও যাবার ছিল, কিন্তু আমার জন্যে.. সত্যি কৃতজ্ঞ ছিলাম ওঁনাদের এতটুকু সাহায্যের জন্য। ওষুধ নিয়ে এসে সুস্মিতা মোটামুটি জোর দিয়েই ওঁনাদের আর অপেক্ষা না করার অনুরোধ করে, আস্তে-সিস্টে আমরা ফিরে যেতে পারব বলে ওঁনাদের বিদায় দিয়ে এল। ভাইয়াজি ওঁনার ফোন নম্বর দিয়ে কোন প্রয়োজনেই যেন ফোন করি সেরম কথা নিয়ে প্রস্থান করলেন। সুস্মিতাকে দেখিয়ে বৃদ্ধাকে বললাম, আমার বউ। বৃদ্ধা মাথা নাড়িয়ে হাসলেন। এরপর আরো কতক্ষন সময় বিছানায় পড়ে ছিলাম খেয়াল নেই। সুস্মিতা আমার পাশেই সারাক্ষন বসে রইল। Poor girl. অনুতপ্ত লাগছিল ওর জন্যে, এলো ঘুরতে আর কি অভিজ্ঞতা লাভ করছে। নিজের ওপর হতাশ ছিলাম খুবই। ~ অক্সিজেন এবং ইঞ্জেকশনের যুগলবন্দী ভালোই কাজ করল বলা যায়, মাথা বেশ হালকা বোধ করলাম এরপর। আমাকে আবার ডাক্তারের চেম্বারে উপস্থিত করা হল আর একপ্রস্থ …